আজ ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৯শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

শার্শায় ১০ ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের ১৫ বিদ্রোহী প্রার্থী বহিষ্কার

বেনাপোল প্রতিনিধি : ইউপি নির্বাচনে নৌকার বিরুদ্ধে অবস্থান নেওয়ায় যশোরের শার্শায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী হিসেবে স্বতন্ত্র প্রার্থী হওয়ায় ১৫ নেতাকে দল থেকে স্থায়ী ভাবে বহিষ্কার করা হয়েছে।

শনিবার (২০ নভেম্বর) যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা শহিদুল ইসলাম মিলন ও সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এই বহিষ্কারের বিষয়ে জানানো হয়েছে।বহিস্কারকৃতরা শার্শা উপজেলা ও ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ ও তার সহযোগী সংগঠনের দায়িত্বে ছিলেন। দলীয় গঠনতন্ত্রের ৪৭ ধারার ১১ নং উপধারায় বলা হয়েছে, ‘জাতীয় বা স্থানীয় সরকার নির্বাচনে কেউ দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে প্রার্থী হইলে দল হইতে সরাসরি বহিষ্কার হইবেন এবং যাহারা দলীয় প্রার্থীর বিরোধীতা করিবেন তাহারা তদন্তসাপেক্ষ মূল দল বা সহযোগী সংগঠন হইতে বহিষ্কার হইবেন’। এই ধারা অনুযায়ী তাদের বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

শার্শা উপজেলার স্থায়ী বহিস্কৃত নেতারা হলেন, শার্শার ডিহি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহসভাপতি হোসেন আলী, সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সাইদুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল জলিল, লক্ষণপুর ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শামসুর রহমান, বাহাদুরপুর ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, গোগা ইউনিয়নের ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি তবিবর রহমান, পুটখালী ইউনিয়নের নবাগত আওয়ামী লীগ কর্মী নাসির উদ্দিন, গোগা ইউনিয়নের ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি তবিবর রহমান, কায়বা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক আলতাফ হোসেন, বাগআঁচড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক আইন বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল খালেক, উলাশী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আয়নাল হক, শার্শা উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক সোহরাব হোসেন, নিজামপুর ইউনিয়নের ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি আশরাফুল আলম বাটুল, ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি আমিনুর রহমান ও কর্মী সেলিম রেজা বিপুল।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন বলেন, ‘দলকে ঐক্যবদ্ধ করার স্বার্থে যেকোনো কঠোর সিদ্ধান্ত নিতে তারা পিছপা হবেন না।’উল্লেখ্য, আগামী ২৮ নভেম্বর যশোরের শার্শার ১০ ইউনিয়নে ভোট অনুষ্ঠিত হবে।

Leave a Reply

     এই বিভাগের আরও খবর