আজ ১লা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৫ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

দেবহাটায় জামায়ত নেতার ইটভাটার মাটিবাহী যন্ত্রদানবে জনদূর্ভোগ চরমে: ব্যবস্থা নেয়নি প্রশাসন

দেবহাটা প্রতিনিধি: সাতক্ষীরায় বর্তমান সময়ের মানবসৃষ্ট জনদূর্ভোগের অন্যতম আলোচিত ও বিরক্তিকর কারন ইট ভাটার মাটি বহনকারী যন্ত্রদানব খ্যাত অবৈধ ড্রামট্রলি, ষ্কেভেটর মেশিন, মিনিট্রাক ও ট্রলির অবাধ যাতায়াত। সম্প্রতি জেলার দেবহাটাতেও বেআইনীভাবে কৃষি জমিতে ব্যাঙের ছাতার মতো গজিয়ে ওঠা ইট ভাটার জন্য বিভিন্ন সড়কে হুড়মুড়িয়ে চলা এসব অবৈধ যানবহনের যাতায়াত মহামারী আকার ধারন করেছে। মাটিবাহী এসব অবৈধ যান চলাচলে একদিকে যেমন জনদূর্ভোগ তীব্র ভাবে বেড়েছে, তেমনি অপরদিকে ফসলী জমিতে কৃষি উৎপাদন হ্রাস, পরিবেশ বিপর্যয়ের পাশাপাশি প্রতিনিয়ত সড়ক গুলোতে ঘটছে মারাত্মক দূর্ঘটনা। আগে থেকেই দেবহাটা উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়নে মাথা উঁচিয়ে থাকা কমপক্ষে এক ডজন ইটভাটার মাটি বহনকারী যন্ত্রদানব খ্যাত শত শত ড্রামট্রলি, স্কেভেটর মেশিন, মিনিট্রাক ও কয়েক হাজার ট্রলির অত্যাচারে প্রত্যেকটি মানুষ ও অন্যান্য যানবহন যখন অতিষ্ট ঠিক তখনই সখিপুরের ধোপাডাঙ্গা টু পাঁচপোতা সড়কের পাশে ফসলী জমিতে নতুন করে ইটভাটা নির্মানের জন্য সেসব অবৈধ যন্ত্রদানবের ব্যবহার করে নুতন করে মানুষকে তীব্র দূর্ভোগে ফেলেছেন পারুলিয়ার রাফসান ব্রিকসের মালিক জেলা জামায়তের অন্যতম অর্থ যোগানদাতা আবু হাসান। প্রতিদিন সকাল থেকে গভীর রাত অবদি তীব্র জনদূর্ভোগ সৃষ্টি করে সংকীর্ণ পিচঢালা এ সড়কটির তেতুলতলা সংলগ্ন এলাকা থেকে স্কেভেটর মেশিনে মাটি কেটে ড্রামট্রলিতে বোঝাই করে রাস্তার পাশে ইটভাটা নির্মানের জন্য মাটি ভরাট করে চলেছেন জামায়ত নেতা আবু হাসান। প্রভাবশালী এ জামায়ত নেতা নিজের স্বার্থ চারিতার্থ করতে আশপাশের এলাকার হাজার হাজার মানুষ ও ওই সড়কটিতে নিয়মিত যাতায়াত করা ছোটখাটো যানবহন গুলোকেও ফেলেছেন চরম দূর্ভোগে। এঘটনায় স্থানীয়রা একাধিকবার বাঁধা দিতে গেলে তাদেরকেও রক্তচক্ষু দেখিয়ে সেখান থেকে হটিয়ে দিচ্ছেন জামায়ত নেতা আবু হাসান ও তার লোকজন। সম্প্রতি স্থানীয়রা দেবহাটা সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু বকর গাজীর কাছে এবিষয়ে অভিযোগ দিলে জনস্বার্থে তিনি জামায়ত নেতার এ অপকর্ম বন্ধ করে দেন। কিন্তু আইনের তোয়াক্কা না করে বন্ধ করে দেয়ার পরদিন থেকে আবারো দেদারছে ইটভাটার জন্য মাটিবাহী অবৈধ যন্ত্রদানবের ব্যবহার মানুষকে দূর্ভোগে ফেলেছে জামায়ত নেতা আবু হাসান। পরবর্তীতে বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে জানিয়েও আশানুরুপ কোনো ফল পাননি বলে আক্ষেপ করেন জনদূর্ভোগে অতিষ্ট স্থানীয় একাধিক ভুক্তভোগীরা। তাই জনদূর্ভোগ নিরসনে অবিলম্বে ওই সড়কটিতে জামায়ত নেতা আবু হাসানের ইটভাটার মাটিবাহী যন্ত্রদানব চলাচল বন্ধের জন্য সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসকের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন ভুক্তভোগীরা।

নামায ও ইফতারের সময়সূচীঃ

সেহরির শেষ সময় - ভোর ৩:৫৭ পূর্বাহ্ণ
ইফতার শুরু - সন্ধ্যা ৬:৩৯ অপরাহ্ণ
  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৪:০২ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০২ অপরাহ্ণ
  • ৪:৩৬ অপরাহ্ণ
  • ৬:৩৯ অপরাহ্ণ
  • ৮:০১ অপরাহ্ণ
  • ৫:২২ পূর্বাহ্ণ

Leave a Reply

     এই বিভাগের আরও খবর