আজ ৯ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৪শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

আজ পুজা উৎসবে উচছাসের আমেজ বইছে,বিজয় দশমীতে ।

রাকিবুল হাসান শ‍্যামনগর॥ মহানবমীতে মহাউৎসব আর উচ্ছাসে আলো জ্বলেছে আজ শ‍্যামনগর উপজেলায় ৬৫পূজা মন্ডবে, করোনা ভাইরাসের কারনে স্বাস্থ্যবিধি মেনে মন্ডবে মন্ডবে আসা যাওয়া, দেবী দর্শন কিছুটা নিরানন্দ থাকলেও উৎসবের সামান্যতম ঘাটতিও ছিল না। শ‍্যামনগর কালিগঞ্জ সড়ক ছিল লোকে লোকারান্য, বাস, ট্রাক, পিকআপ, মাইক্রোবাস, মহেন্দ্র, ইঞ্জিনভ্যান সবই ছিল দর্শনার্থী আর ভক্তদের বাহন। গত কয়েকদিন অপেক্ষা পুজামন্ডবগুলো লোক সমাগম ছিল অনেক বেশী। প্রতিটি মন্ডবে মন্ডবে কঠোর নিরাপত্তা, শৃংখলা যে যার মত প্রতিমা দর্শন করছেন আর ফিরছেন অন্য মন্ডবে, মন্ডব গুলোতে ঢাক, ঢোল, কাশি, বাশি, সানাই এর বাজনা ছিল মনোমুগ্ধকর, কোন কোন মন্ডবের দিগন্ত বিস্তৃত এলাকা নিয়ে আলো আধারির উচ্ছ্বাস, অনন্য অসাধারন দৃশ্য মন্ডব সংলগ্ন এলাকায় বসেছে শত শত দোকান, ছোটদের খেলান, আল্পনা, প্রসাধনী, বাদ্যযন্ত্র সবই আছে। বিশেষ করে বাহারী মিষ্টান্ন দর্শনার্থীদের মন কেড়েছে, মন্ডব সংলগ্ন এলাকাগুলোতে বিশেষ করে তিন রাস্তা বা চার রাস্তার সংযোগ সড়কে দীর্ঘ সময় যানজট নবমীর দিনে কিছুটা প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি করে।শ‍্যামনগর কালিগঞ্জ সড়কের পাশাপাশি উপজেলা ভিত্তিক মফস্বলের সড়ক গুলোতেও যুবক শ্রেণী ট্রাক ও পিকআপ চড়ে আনন্দ প্রকাশ সহ নানান ধরনের বাদ্য যন্ত্র বাজিয়ে মহা নবমীকে জানান দিচ্ছিল। শাস্ত্র, প্রথা আর পঞ্জিকা মতে মহা নবমীর দিনে দুর্গা দেবীকে অত্যন্ত কাছ থেকে দেখা যায়, আর তাই গতকাল মহানবমীতে ভক্তরা দূর্গা দর্শনে মন্ডবে মন্ডবে ঘুরছে। আনন্দ, উৎসব উচ্ছ্বাস এর সামান্যতম ঘাটতি ছিল না। ধর্ম যার যার উৎসব সবার এ যেন বাস্তবতার প্রতিমুখ, দুর্গোৎসব বাঙ্গালী উৎসবের অংশ বিশেষ তা যেন গত কয়েকদিন শ‍্যামনগর দুর্গোৎসবে দেখা গেছে। জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, উপজেলা প্রশাসন, সহ জন প্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ সকলেই গতকাল মন্ডবে মন্ডবে ঘুরেছেন, দুর্গোৎসবের আনন্দ আর আয়োজনের নিজেদেরকে সম্পৃক্ত করেছেন। আজ বিজয়া দশমী, দেবী দুর্গা চলে যাবেন, আর তাই গতকাল আনন্দের পাশাপাশি মন্ডবগুলোতে ছিল বিষাদের ছায়া, সুখ সমৃদ্ধি শান্তীর বরতা নিয়ে পৃথিবীতে আসা দুর্গাদেবী চলে যাবেন, আবারও আসবেন আগামী বছরে।

Leave a Reply

     এই বিভাগের আরও খবর